মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C
পাতা

উপজেলার ঐতিহ্য

লোক উসব :
খালিয়াজুরী অঞ্চলের অন্যতম লোক উৎসব বড়ান্তর গ্রামে ধনুনদীতে অষ্টমী স্নানকে কেন্দ্র করে। সেখানে লোকমেলা বসে। এ মেলাকে স্থানীয় মানুষ তাদের একটি বাৎসরিক উৎসব হিসেবে মনে করে।
শুষ্ক মৌসুমে খালিয়াজুরীর খলাপাড়া গ্রামে তারিখ নির্ধারণ করে কুস্তি প্রতিযোগিতা হয়। স্থানীয় ভাবে কুস্তিকে খেইড় বলে। সে খেইড় দেখতে ও খেইড় লড়তে দূরদুরান্ত থেকে দর্শক ও খেইড়ের মালেরা (যারা কুস্তিলড়ে) আসে।
খালিয়াজুরীর গ্রামের মানুষ এখনো মুখে মুখে ছড়া আবৃত্তি করে। যেমন-
            হাইয়ের ভাই দেওর,
            দৌড়াইয়া নেয় তিন আওর।
            তেডাইল্যার ভরে পরে
            বাদে তে ছাড়ে।
লোকসঙ্গীত :
আষাঢ় মাইশ্যা ভাসাপানি পূবালী বাতাসে এ গানটি খালিয়াজুরী অঞ্চলে বর্ষাকালের চিত্র।
লোকক্রীড়া :
লোকক্রীড়া নেত্রকোণার জেলার অন্য উপজেলা থেকে খালিয়াজুরী উপজেলাতেই বেশী দেখা যায়। বর্ষা মৌসুমে নৌকা ছাড়া মানুষ যখন ঘর থেকে বের হতে পারে না তাই ঘরে বসেই সময় কাটায়। সে সময়ে মেয়েরা থাপড়ি, কুত- কুত, ছাপ, লুডু , তালুক খাওয়া, ষোলকড়ি, ইত্যাদি খেলায় মেথে ওঠে। ছেলেরা পানিতে নলই (পানিতে ডুব দিয়ে একে অন্যকে ধরা), ঘরে বসে পট খেলা, ছাপখেলা খেলে। শুষ্ক মৌসুমে ছেলেরা দারিয়াবান্ধা,  হাডুডু, গোল্লাছুট খেলে।
সঙ্গীত চর্চ্চা :
খালিয়াজুরীর চিত্ত সেন উচ্চাঙ্গ সঙ্গীত চর্চ্চা করতেন। পরে আধুনিক গানের চর্চ্চা করে বেশ দতা অর্জন করেছিলেন এবং আকাশবাণী কেন্দ্রে নিজেকে প্রতিষ্ঠা করেছিলেন।
গীত :
বিয়ে- শাদীতে খালিয়াজুরী অঞ্চলে বিয়ের গীত এখনো প্রচলিত। বিয়ে শাদীতে মাইক দিয়ে গীত পরিবেশিত না হলে যেন বিয়েই হচ্ছেনা। গীত পরিবেশনের জন্য এক পাড়ার বিয়েতে অন্য পাড়ার মহিলাগীতালু নিমন্ত্রন করে। অবস্তাসম্পর্ন পরিবারের বিয়ে-শাদীতে গীতালুদের উপহার হিসেবে শাড়ী অথবা টাকা দেয়া হয়।
নৌকা বাইচ :
খালিয়াজুরী উপজেলার বার্ষিক একমাত্র বিনোদন নৌকা বাইচ । বছরের শ্রাবণ মাসের শেষ দিনে মনষাপুজা উপলক্ষ্যে সে নৌকা বাইচের আয়োজন হয়। সে নৌকা বাইচের দীর্ঘ বছর ধরে আয়োজন করে আসছে ইছাপুর ও খলাপাড়া গ্রামবাসী। নৌকা বাইচে পুরস্কারের ব্যবস্থা রয়েছে। যে সকল গ্রামের নৌকাবাইচের দল অংশ নেয় সে দলের পে সমগ্র গ্রাম বিভিন্ন ভাবে সহযোগিতা করে। যেন সমস্ত গ্রামবাসীর মান- সম্মান সে প্রতিযোগিতার সঙ্গে জড়িত। সম্প্রতিবালে খালিয়াজুরীর নৌকাবাইচে মন্ত্রী, আমলারা অতিথি হিসেবে আসেন।
শিল্প :

নৌকা তৈরি এ অঞ্চলের অন্যতম দারু শিল্প। দারু শিল্পীরা শুধু নৌকাই তৈরি করেন না নৌকায় খোদাই করে কারু কাজও করেন। অনেক নৌকা ময়ুরের আকৃতি করে তৈরি হয়। অনেক নৌকা বিভিন্ন রং দিয়ে রঞ্জিত করা হয়।